ওবায়েদ, বিশেষ প্রতিনিধি: টেকনাফ উপজেলা যুবদলের উদ্যোগে শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৪০তম শাহাদাত বার্ষিকীর আলোচনা সভা, খতমে কোরআন, দোয়া মাহফিল ও কোরআনের হাফেজদের মাঝে খাদ্য বিতরণ করা হয়েছে।

সোমবার বিকাল ৩টায় বাহারছড়ায় টেকনাফ উপজেলা যুবদলের যুগ্ন আহ্বায়ক মোহাম্মদ সেলিমের বাসায় অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত আলোচনা সভায় সঞ্চালনায় করেন টেকনাফ উপজেলা যুবদলের যুগ্ন আহ্বায়ক মোক্তার হোসেন বাপ্পী এবং সভাপতিত্ব করেন আহ্বায়ক মোহাম্মদ কাইয়ুম।

উক্ত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেনo টেকনাফ উপজেলা বিএনপির সভাপতি এডভোকেট হাসান সিদ্দিকী।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টেকনাফ উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসাইন,বাহারছড়া ইউনিয়ন উত্তর শাখা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হক মেম্বার,টেকনাফ উপজেলা যুবদলের সদস্য সচিব জুনায়েদ আলী চৌধুরী, সাবেক সিনিয়র যুগ্ন আহ্বায়ক আব্দুল আমিন আবুল। টেকনাফ উপজেলা যুবদলের সিনিয়র যুগ্ন আহ্বায়ক জালাল উদ্দীন,যুগ্ম আহ্বায়ক মোহাম্মদ সেলিম,টেকনাফ উপজেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক হারুন অর রশিদ।

উপস্থিত ছিলেনঃ টেকনাফ উপজেলা যুবদলের যুগ্ন আহ্বায়ক মোহাম্মদ রফিক, টেকনাফ উপজেলা সেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র যুগ্ন আহ্বায়ক উমর সাদেক,টেকনাফ উপজেলা যুবদলের সদস্য রিফাত মোহাম্মদ জাকারিয়া,জালাল উদ্দীন, আব্দুল কোদ্দোস,সাদ্দাম হোসাইন শাহীন, জয়নাল আবেদীন, মোহাম্মদ ফরিদ টেকনাফ উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক যুগ্ন আহ্বায়ক সোহেল রানা, শামীম সাকলাদার, যুগ্ন আহ্বায়ক খালেকুজ্জামান বাহারমিয়া,টেকনাফ উপজেলা ছাত্রদলের সদস্য সাইদুল ইসলাম সাঈদ, মোহাম্মদ বশিরসহ টেকনাফ উপজেলা বিএনপি, যুবদল, ছাত্রদল, সেচ্ছাসেবকদল, শ্রমিকদলের বিভিন্ন ইউনিট থেকে নেতৃত্ববৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এতে বক্তারা শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের স্মৃতিচারণ করেন এবং আধুনিক বাংলাদেশ বিনির্মাণে তার ১৯ দফা নিয়ে আলোচনা করেন।
সর্বশেষে মহান স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে মোনাজাত পরিচালনা করেন টেকনাফ উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক মোহাম্মদ কাইয়ুম।

টেকনাফ উপজেলা যুবদলের উদ্যোগে জিয়াউর রহমানের ৪০তম শাহাদাত বার্ষিকী পালিত

শেখ রাফসান বাগেরহাট প্রতিনিধিঃ মোংলা উপজেলায় করোনা সংক্রমন দিন দিন বেড়েই চলছে। মৃত্যুর হার বৃদ্ধি পাওয়ায় উপজেলা প্রশাসন কঠোর বিধি নিষেধ আরোপ করলেও অনেক জায়গায় তা মানছেন না সাধারন মানুষ।

মঙ্গলবার গভির রাতে উপজেলা চিলা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক প্যানেল চেয়ারম্যান এবং বর্তমান ইউপি সদস্য ৭নং ওয়ার্ডের শেখ নজরুল ইসলাম নজু (৪০) করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু বরন করেন। এ তথ্য নিশ্চিত করেছে মোংলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কমলেশ মজুমদার।

তিনি জানান, নজরুল ইসলাম বেশ কয়েকদিন যাবত জ্বর ও শাষকষ্ট নিয়ে নিজ বাসায় অবস্থান করছিলেন। তাকে জিজ্ঞেস করলে খুলনায় একটি পরিক্ষায় তার করোনা পজেটিব ছিল বলে জানায় তিনি।

তিনি আরো বলেন, মোংলা উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় করোনা ভাইরাসের উপসর্গ চতুর্দিকে ছড়িয়ে পরছে। ভারত থেকে পন্য নিয়ে লাইটার ও কার্গো জাহাজ বন্দর চ্যানেল দিয়ে যাওয়ার সময় এখানে নঙ্গর করে নিত্যপ্রয়োজনীয় বাজার করার সুত্রধরে এ এলাকায় অবাধ বিচারন ও ইদ পরবর্তী সময়ে লোকজন আসা-যাওয়ার কারনেই করোনার সংক্রমোন সংঙ্খা বেড়ে গেছে মোংলাসহ এর আশ-পাশ এলাকায় বলে ধারনা প্রশাসনের। যার কারনে উপজেরা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সাধারন মানুষের চলাচলের উপর ৮দিনের কঠোর বিধি নিষেধ আরোপ করা হয়েছে। তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে, মাস্ক পরা ব্যাতীত কাউকে পাওয়া গেলে তাকে আইনানুগ শাস্তির ব্যাবস্থা, পৌর শহরে প্রবেশ সংকুচিত, ঔষধ, জরুরি কৃষিপণ্য ব্যতীত সকল দোকানপাট বন্ধ,মাছ-মাংস-ফলের দোকান ও কাচা বাজার ব্যাতিত সকল দোকান বন্ধ, নদী পাড়াপারে সিমিত, ভারতীয় নৌযানের নাবিকরা শহরে উঠা নিষেধসহ কঠোর আরোপ করা হয়। কিন্ত অনেক স্থানেই তা মানার চেষ্টা করছেন না সাধারন মানুষ তবে এ এলাকায় করোনা সক্রমোন ভয়াভাহ আকার ধারন করতে পারে বলে স্থানীয় অনেকেই জানিয়েছে। গত এক সপ্তাহে ১০৯ জনের করোনা ভাইরাসের পরিক্ষা করানো হয় তার মধ্যে ৬৩ জনের করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ৭জনের। বর্তমানে শনাক্তের হার প্রায় ৭০ শতাংশ। স্থানীয় সওকাত হোসেন জানায়, মোংলা এই করোনা পরিস্থিতির জন্য দায়ী কে ? কেন এত সুন্দর মোংলা কে আমরা সুরক্ষিত রাখতে পারলাম না। ইদ উদযাপনের নামে মোংলা দিন রাত এমন কি রাত ১২ টার পরও দোকান খোলা দেখা যাচ্ছে। ভারত থেকে আগত লাইটার জাহাজ থেকে শত শত নাবিক মোংলায় নামছে, যে ভাবে খুশি সেই ভাবে মাক্স পরিধান ছাড়া সামাজিক দুরত্ব বা স্বাস্থ্যবিধি ছাড়া অবাধ চলাচল এর কারনে করোনায় আজ আমাদের নিরাপদ মোংলা থেকে একে একে জীবন কেড়ে নিচ্ছে। অনেক এলাকায় শোনা যাচ্ছে তাদের পরিবারের লোক অসুস্থ্য হয়ে বাসায় অবস্থান করছে। এ মরন ঘাত করোনায় আরো যেন কত প্রান কেড়ে নিবে কে জানে। তার পরেও আল্লাহর উপর ভরসা করা ছাড়া অন্য কোন উপায় নেই বলে জানায় তিনি।

মোংলায় করোনার উপসর্গ নিয়ে ইউপি সদস্য-এর মৃত্যু

বিশেষ প্রতিনিধিঃ কক্সবাজার শহরের রুমালিয়ারছড়া এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দুইদল সন্ত্রাসী গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় গুলি ও দায়ের কুপে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে।

আজ সোমবার (৩১ মে) সন্ধায় রুমালিয়ারছড়ার সিকদার বাজার এলাকায় এঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, রুমালিয়ারছড়া এলাকার লেদু মিয়ার ছেলে মোহাম্মদ সাহেদ (২৮) ও তার সহযোগী বাঁচামিয়ার ঘোনা এলাকার নুরুল করিমের ছেলে রায়হানুল ইসলাম রায়হান (২৫)।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, রুমালিয়ারছড়া এলাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী আশু আলী গ্রুপের সঙ্গে আরেক সন্ত্রাসী গ্রুপ রায়হান গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। মূলত একটি জমিকে ঘিরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা ঘটে। এতে মোহাম্মদ সাহেদ (২৮) গুলি করে ও রায়হানুল ইসলাম রায়হান কে কুপিয়ে জখম করে। পরে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুইজনকে মৃত ঘোষণা করে।

কক্সবাজার সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) বিপুল চন্দ্র দে বলেন, নিহত দুইজনের মধ্যে রায়হানের দুইটি হত্যা ও একটি ছিনতাইয়ের মামলা রয়েছে। দুই গ্রুপ সেখানে আধিপত্য নিয়ে বিভিন্ন সময় সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। পুলিশ অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রুপের সদস্যদের গ্রেফতার করলেও জামিনে বেরিয়ে আবারো সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে লিপ্ত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে মর্গে প্রেরণ করেছে।

দুই গ্রুপের সংঘর্ষে কক্সবাজারে নিহত দুই

স্টাফ রিপোর্টারঃ রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের ২০২০-২০২১ অর্থ বছরের সংশোধিত বাজেট ও ২০২১-২০২২ অর্থ বছরের প্রস্তাবিত বাজেট প্রণয়ন সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। অর্থ ও সংস্থান স্থায়ী কমিটির প্রারম্ভিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (৩১ মে) দুপুর সাড়ে ১২টায় নগরভবনের সিটি হল সভাকক্ষে রাসিকের অর্থ ও সংস্থাপন স্থায়ী কমিটির আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন কমিটির সভাপতি ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন।

সভায় সিটি মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, বর্তমান পরিষদ দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকে মহানগরীর উন্নয়নে ব্যাপক উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছি। করোনাকালীন এই সময়েও মহানগরীর উন্নয়ন থেমে নেই। দেশে করোনা সংক্রমণের আগ মুহুর্তে রাজশাহী মহানগরীর ব্যাপক উন্নয়নে প্রায় তিন হাজার কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ইতোমধ্যে প্রায় দুইশ কোটি টাকা পাওয়া গেছে। আশা করছি আগামী অর্থবছরে বেশি অর্থ পাওয়া যাবে। নাগরিক সেবার মান বৃদ্ধিসহ অবকাঠামো নির্মাণ কাজ অব্যাহত থাকবে। যার সুফল ভোগ করবে রাজশাহী মহানগরবাসী। করোনা সঙ্কটকালীন এ মুহুর্তে বাজেট প্রণয়নে রাসিকের সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ জানান সিটি মেয়র।

সভায় ২০২০-২১ অর্থ বছরের বরাদ্দ, গত নয় মাসের প্রকৃত আয় ও চলতি অর্থ বছরের তিন মাসের সংশোধিত বরাদ্দ বিভিন্ন খাতে আয়ের খাতসমূহ পর্যালোচনা করা হয়েছে। সভায় বকেয়া সরকারি হোল্ডিং, হাল সরকারি হেল্ডিং, বকেয়া বেসরকারি হোল্ডিং, হাল বেসরকারি হোল্ডিং কর আদায়ে সংশ্লিষ্টদের আরও তৎপর হবার নির্দেশনা প্রদান করেন রাসিক মেয়র।

রাসিকের ২২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল হামিদ সরকার টেকনের সঞ্চালনায় সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন কমিটির সদস্য সচিব ও বাজেট কাম হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম খান।

সভায় বক্তব্য রাখেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, ২১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নিযাম উল আযীম, ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন। এ সময় মঞ্চে উপবিস্ট ছিলেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-২ ও ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ রজব আলী ও রাসিকের সচিব মোঃ মশিউর রহমান। সভায় রাসিকের কাউন্সিলরবৃন্দ ও সকল শাখা কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

রাসিকের সংশোধিত ও প্রস্তাবিত বাজেট প্রণয়নে অনুষ্ঠিত সভা

ওবায়েদ,  বিশেষ প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের গোপালপুরে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি আওতায় জব্দকৃত ৬০ বস্তুা চাল মহামান্য আদালতের আদেশে স্থানীয় প্রশাসনের উদ্যোগে অসহায় ও দুস্থ চাল পরিবারের মাঝে চাল বিতরণ।

(৩১মে) সোমবার সকালে গোপালপুর উপজেলা প্রশাসন ও থানা প্রশাসনের উদ্যোগে গোপালপুর থানা প্রাঙ্গণে অসহায় ও দুস্থ মাঝে চান বিতরণ করাহয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহি অফিসার মো.পারভেজ মল্লিক, পৌর মেয়র রকিবুল হক ছানা থানা অফিসার ইনচার্জ মোশারফ হোসেন, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসার আব্দুল্লাহ ইবনে হুসাইন, এসআই আখতারুজ্জামান সোহাগ ও পৌরসভার কাউন্সিলর ও অন্যান্য কর্মকর্তা বৃন্দ আরো উপস্থিত ছিলেন উপকারভোগী।

গোপালপুরের খাদ্যবান্ধব জব্দকৃত চাল আদালতের আদেশে গরীব দুঃস্থদের মাঝে বিতরন

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী মহানগর সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মো. মাসুদুর রহমান তেতুকে বাড়িতে ঢুকে হামলা চালিয়েছে একদল সন্ত্রাসী। এ সময় তারা তেতুর মাথায় হাতুড়ি ও ধারালো অস্ত্র দ্বার মাথায় আঘাত করে রক্তাত্ব জখম করে। পরে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে পালিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। তবে তিনজন সন্ত্রাসীকে আটক করে বোয়ালিয়া থানা পুলিশে সোপর্দ করেছে।

গতকাল রোববার দিবাগত রাত সাড়ে ৯টার দিকে নগরীর বোয়ালিয়া থানাধিন ভদ্রা মোড়ের পাশে মসজিদ সংলগ্ন একটি ৫তলা বাড়িতে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

আহত মাসুদুর রহমান তেতু মহানগরীর বোয়ালিয়া থানাধিন বালিয়া পুকুর এলাকা (২৭) ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা ও মহানগর সাবেক আওয়ামী লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন।

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী নেতা তেতুর ভাই মো. শফিউর রহমান বদি হয়ে বোয়ালিয়া মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। এতে কথিত সাংবাদিক নবুসহ ৩০/৩৫ জনকে আসামী করা হয়েছে।

আটককৃতরা হলেন, মতিহার থানাধিন কাজলা বড়মসজিদ এলাকার আব্দুস সাত্তারের ছেলে আকতারুজ্জামান টনি (৩৫), একই থানার জামির ওরফে মানিকের ছেলে মিনু ওরফে রাজু ওরফে মিঠু (২১), নগরীর চন্দ্রিমা থানার ছোটবনগ্রাম এলাকার কাবিলের ছেলে জামির ওরফে মানিক।
আহত নেতা মো. মাসুদুর রহমান তেতু বলেন, গতকাল রোববার দিবাগত রাত ৯টার দিকে ভদ্রা মোড়ে অবস্থিত আমার ভাড়া করা বাড়ির নিচতলার (পার্কিং) গ্যারেজে বসে আমার ব্যবসার পার্টনারদের সাথে ব্যবসা সংক্লান্ত আলোচনা করছিলাম। হটাৎ ৩০/৩৫ জন যুবকের একটি দল গ্যারেজে প্রবেশ করে। এ সময় তাদের মধ্যে নবু নামের একজন সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে ১৫ হাজার টাকা দাবি করে। একই সময় টনি জনপ্রতি ১০ হাজার করে টাকা দাবি করে। কেন টাকা দেবো ? বলার সাথে সাথেই তারা এক সাথে হাতুড়ি ও ধারালো অস্ত্র দ্বারা আমার মাথায় আঘাত রক্তাক্ত জখম করে। ওই সময় আমার সাথে থাকা লোকজনের চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে তারা একটি জিংফু (রাজ মেট্রো-হ-১১-১৪৪৮) মোটরসাইকেল ফেলে পালিয়ে যায়। তবে ৩জন সন্ত্রাসীকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে স্থানীয়রা। পরে আমাকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে নগরীর ভদ্রা আবাসিকে অবস্থিত বারিন্দ্র মেডিকেল কলেজে নিয়ে ভর্তি করেন তারা। এ সময় আমার মাথার ক্ষত স্থানে ১০টি সেলাই দেন কর্তব্যরত চিকিৎসক।
তিনি আরও বলেন, আমাকে কেন হত্যার উদ্দেশ্যে আঘাত করা হলো, তা আমার বোধগম্য নয়। তবে তিনি হামলার ঘটনার সঠিক তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত ঘটনা উদ্ঘাটনের জন্য আরএমপি পুলিশের পুলিশ কমিশনারের কাছে অনুরোধ জানান।

জানতে চাইলে বোয়ালিয়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নিবারণ চন্দ্র বর্মন ঘটনার সত্যতা স্বিকার করে বলেন, ভুক্তভোগীর ভাই বাদি হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ওই মামলায় আটক তিনজনকে গ্রেফতার দেখিয়ে সোমবার দুপুর ১২টায় আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারে অভিযান চালানো হচ্ছে বলেও জানান ওসি।

রাজশাহীতে আওয়ামী লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টা সন্ত্রাসীদের, গ্রেফতার-৩

ফেসবুক

পুরাতন খবর খুঁজুন

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১