স্টাফ রিপোর্টারঃ গাইবান্ধা সদর উপজেলার কামারজানি ইউনিয়নে ব্রহ্মপুত্রের নদীর পার ভাঙতে শুরু করেছে। ইউনিয়নটির কুন্দেরপাড়া এবং খারজানি গ্রামে ভাঙনের মাত্রা সবচেয়ে বেশি। গত কয়েকদিনের ব্যবধানে ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙনে কামারজানি ইউনিয়নে বিলীন হয়েছে নদীপাড়ের ফসলি জমি, ভাঙ্গনের শিকার হয়েছেন শতাধিক পরিবারের প্রায় পাঁচ শতাধিক মানুষ।

তারা ভিটেমাটি ছেড়ে খোলা আকাশের নিচে জীবন যাপন শুরু করেছে। আর নদী ভাঙ্গন কবলিত এলাকার একটু সচ্ছল মানুষ গুলো নিরাপদ স্থানে সরে গিয়ে তাদের আবাশ স্থল গড়ে তুলেছে।

একই সময় নদী ভাঙ্গন তীব্র হওয়ায় বাস্তহারা হয়েছেন সরকারি আশ্রায়ণ প্রকল্প ‘মুজিব কেল্লা’র ৫৫টি পরিবার। ভাঙ্গনের মুখে রয়েছে, ১টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং ১টি বাজারের প্রায় ৫৫টি দোকানঘর।

স্থানীয় পানি উন্নয়ন বোর্ড থেকে এখনি কার্যকরী কোন পদক্ষেপ গ্রহন না করা হলে বাস্তহারা ঐ সমস্ত পরিবাবের মত আরো অনেক পরিবার নিঃশ্চ হয়ে যাবে বলে এলাকাবাসী মনে করে।

গাইবান্ধায় নদী ভাঙ্গনের শিকার শতাধিক পরিবার

সুলতান মিয়া, সাদুল্লাপুর উপজেলা (গাইবান্ধা) প্রতিনিধি: বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ২২ এর (১) ধারা লঙ্ঘন করে সাদুল্লাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভা আহ্বান ও সংবাদ সম্মেলন করেছে সাধারণ সম্পাদক সাহারিয়া খাঁন বিপ্লব। এরই প্রতিবাদে এক জরুরি সভা শেষে সংবাদ সম্মেলন করেন ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকারিয়া খন্দকার।

সোমবার (৩১ মে) দুপুরে সাদুল্লাপুর দলীয় কার্যালয়ে এ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সাদুল্লাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকারিয়া খন্দকার।

এসময় জেলা আওয়ামীলীগের নেতা মতিয়ার রহমান, সাদুল্লাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা মকবুলার রহমান, স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা শহিদুল ইসলাম সবুর, আব্দুর গফুর মিয়া, মতিয়ার রহমান, সৈয়দ রায়হানুল ইসলাম রবার্ট ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম রিপন প্রমুখ।

ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকারিয়া খন্দকার তার বক্তব্যে বলেন, ৩০ মে সাদুল্লাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাহারিয়া খাঁন বিপ্লব বিধি বহির্ভূতভাবে ১৪৪ ধারা উপেক্ষা করে এক সভা করেছে। সেই সভায় ভারপ্রাপ্ত সভাপতি পদ ও সদস্য পদ থেকে বাতিলের সিদ্ধান্ত গ্রহন করেছে মর্মে জানিয়েছেন। কিন্তু সাধারণ সম্পাদক সাহারিয়া খাঁন বিপ্লব দলীয় ২২ এর (১) ধারা লঙ্ঘন করে সভা করেছে।

জাকারিয়া খন্দকার আরও বলেন, সাদুল্লাপুর উপজেলার আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাহারিয়া খান বিপ্লবের এহেন কর্মকাণ্ডে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে জরুরি সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক তাকে সাধারণ সম্পাদক পদ থেকে অব্যাহতির সিদ্ধান্তসহ সদস্য পদ থেকে কেন বহিস্কার করা হবে না, এ মর্মে কারণ দর্শানোর জন্য নির্দেশ দেওয়া হলো।

দলীয় ধারা লঙ্ঘনের প্রতিবাদে সাদুল্লাপুরে আ.লীগ নেতার পাল্টা সংবাদ সম্মেলন

মোঃ সুমন হাসান বাপ্পি ঠাকুরগাঁও থেকেঃ ‘আসুন আমরা প্রতিজ্ঞা করি জীবন বাঁচাতে তামাক ছাড়ি’ এই প্রতিবাদ্য বিষয়কে সামনে রেখে ঠাকুরগাঁওয়ে বিশ্ব তামাকমুক্ত দিবস পালন করা হয়েছে।

তামাকমুক্ত দিবস উপলক্ষে আজ সোমবার দুপুরে ঠাকুরগাঁও সিভিল সার্জন অফিসের সামনে থেকে একটি র্যালী বের হয়। র্যালীটি শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে একই জায়গায় এসে শেষ হয়।

পরে সিভিল সার্জন সভাকক্ষে তামাকমুক্ত দিবস উপলক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

ঠাকুরগাঁওয়ের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) নুর কুতুবুল আলমের সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) মোসফেকুর রহমান , সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ ফিরোজ জামান জুয়েল, সাবেক ক্রীড়া কর্মকর্তা আবু মহিউদ্দীন, সিনিয়র স্বাস্থ্য শিক্ষা অফিসার আশীষ কুমার সাহা প্রমুখ।

সভায় বক্তারা বলেন, সমাজে যারা ধুমপানসহ মাদকের সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন, তাদের নিয়মিত কাউন্সিলিং করতে হবে। যাতে করে মানুষ এই তামাক থেকে দুরে থাকে। তামাকমুক্ত থাকতে পারলে ভাল থাকবে দেশে, ভালো থাকবে মানুষ।

ঠাকুরগাঁওয়ে বিশ্ব তামাকমুক্ত দিবস পালন

স্টাফ রিপোর্টারঃ আরএমপি’র সিসিটিভির ভিডিও ফুটেজ সূত্র ধরে রাজপাড়া থানার ডিংগাডোবা এলাকায় অভিযান চালিয়ে অটোরিক্সা চালক মোঃ আনোয়ার হোসেন (৩২)কে ব্যাংক কর্মকর্তার খোয়া যাওয়া ২,৯৪,০০০ টাকা ব্যাগসহ গ্রেফতার করেছে বোয়ালিয়া মডেল থানা পুলিশ।

ঘটনাসূত্রে যানা যায়, গত ৩০ মে ২০২১ সকাল ৭.১২ টায় ব্যাংক কর্মকর্তা মোক্তাদির আহমেদ (৪৯) রাজপাড়া থানার বহরমপুর মোড় হতে ভদ্রা যাওয়ার উদ্দেশ্যে একটি অটোরিক্সায় উঠেন। তার কাছে একটি ব্যাগ ছিল। সেই ব্যাগে নগদ ২,৯৪,০০০ টাকা, তার মোবাইল ফোন নম্বর, অফিসের আইডি কার্ড এবং তার বাড়ী ও অফিসের চাবি ছিল। মোক্তাদির আহমেদ সকাল ৭.৩০ টায় ভদ্রা মোড়ে পৌঁছায়। এরপর সে ভদ্রা বাস কাউন্টারে যাওয়ার সাথে সাথেই টাকার ব্যাগসহ অটোরিক্সা চালক উধাও হয়ে যায়। সে অটোরিক্সাটি আশপাশ অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে বোয়ালিয়া মডেল থানায় জিডি করেন এবংপুলিশ কমিশনার জনাব আবু কালাম সিদ্দিক মহোদয়কে বিষয়টি অবগত করেন সেইসাথে টাকাসহ ব্যাগ উদ্ধারের অনুরোধ করেন।

পুলিশ কমিশনার মহোদয় বিষয়টি গুরুত্বের সাথে নিয়ে আরএমপি সাইবার ক্রাইম ইউনিটের ইনচার্জ সিনিয়র সহকারি ‍পুলিশ কমিশনার জনাব উৎপল কুমার চৌধুরীকে অটোরিক্সা চালকে আটক করে টাকা উদ্ধারের নির্দেশ প্রদান করেন।

সাইবার ক্রাইম ইউনিট দ্রুততার সাথে ঘটনাস্থলের ভিডিও ফুটেজ সংগ্রহ করে অটোরিক্সা চালককে সনাক্ত করে।

পরবর্তীতে আজ ৩১ মে ২০২১ সকাল ১০ টায় বোয়ালিয়া মডের থানার এসআই মোঃ গোলাম মোস্তফা, এসআই উত্তম কুমার রায় রাজপাড়া থানার ডিংগাডোবা মোড় হতে অটোরিক্সার চালক মোঃ আনোয়ার হোসেনকে তার অটোরিক্সাসহ আটক করেন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আনোয়ার হোসেন টাকাসহ ব্যাগ পাওয়ার কথা অস্বীকার করে। পরবর্তীতে তাকে সিসি টিভি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজ দেখানো হলে সে টাকার ব্যাগ পাওয়ার কথা স্বীকার করেন। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে রাজপাড়া থানার মহিষবাথান উত্তরপাড়া রেললাইনের ধারে মোঃ আনোয়ার হোসেনের বাড়ী হতে ২,৯৪,০০০ টাকা ও কালো ব্যাগ, আইডি কার্ড, চাবি উদ্ধার করা হয়। টাকার ব্যাগের মধ্যে মোক্তাদির আহমেদের ফোন নম্বর ছিল। সে তার সাথে কোন যোগাযোগ করেনি। এতে প্রতীয়মান হয় অটোরিক্সার চালকের অনৈতিক উদ্দেশ্যে ছিল।

অটোরিক্সা চালকের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

প্রসংঙ্গত, আরএমপি’র পুলিশ কমিশনার জনাব মোঃ আবু কালাম সিদ্দিক মহদোয়ের নির্দেশনায় রাজশাহী মহানগরীতে অপরাধ প্রবণতা শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনতে মহানগরজুড়ে ক্লোজ সার্কিট (সিসি) ক্যামেরা স্থাপন করেছে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ। ধারাবাহিকভাবে এর ফল ভোগ করছে মহানগরবাসী। বিভিন্ন স্থানের ভিডিও ফুটেজ পর্যবেক্ষণ করে দূর্ঘটনার কারণ, হারিয়ে যাওয়া মালামাল উদ্ধার, চুরি, ছিনতাইসহ অনেক সমস্যা দ্রুত সমাধান করছে আরএমপি। সর্বশেষ সাফল্য মিললো খোয়া যাওয়া ব্যাগসহ ২,৯৪,০০০ টাকার উদ্ধার করে।

রাজশাহীতে ২,৯৪,০০০ টাকা সিসিটিভির ভিডিও ফুটেজে উদ্ধার অটোরিক্সাচালক আটক

ফেসবুক

পুরাতন খবর খুঁজুন

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১